আজ শনিবার, ৩০ মে, ২০২০

জাফর ইকবালের বক্তব্যের প্রতিবাদ জানিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয় পরিষদ

 প্রকাশিত: ২০১৮-০৭-২৯ ২১:২০:০১

নিজস্ব প্রতিবেদক:

বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যদের সম্পর্কে শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ড. মুহাম্মদ জাফর ইকবালের মন্তব্যের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছে বাংলাদেশ বিশ্ববিদ্যালয় পরিষদ। বাংলাদেশের সব পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যদের নিয়ে গঠিত এই সংগঠন।

শনিবার জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের জনসংযোগ, তথ্য ও পরামর্শ দপ্তরের পরিচালক (ভারপ্রাপ্ত) মো. ফয়জুল করিমের পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

এ ব্যাপারে পরিষদের সভাপতি ও জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. হারুন অর রশিদ এক বিবৃতিতে বলেন, ‘বিশ্ববিদ্যালয়েপাচার্যদের নিয়োগ সম্বন্ধে ড. জাফর ইকবালের ঢালাও মন্তব্য উপাচার্যবৃন্দকে বিস্মিত ও মর্মাহত করেছে। তাঁর মতো একজন দায়িত্ববান ব্যক্তি কীভাবে এরূপ মন্তব্য করতে পারেন, সেটি ভেবে আশ্চার্যান্বিত হতে হয়। শুধু লবিং করেই যে উপাচার্য হওয়া যায় না এবং অনেক যাচাই বাছাই প্রক্রিয়া শেষে যে উপাচার্য পদে নিয়োগ প্রদান করা হয়, সে বিষয়টি তাঁর অজানা নয়। তাঁর ওই বক্তব্য-মন্তব্য খোদ সরকার ও মাননীয় চ্যান্সেলরের এ সংক্রান্ত বিবেচনাকেও প্রশ্নবিদ্ধ করার সামিল।’

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য বলেন, ‘ড. জাফর ইকবাল দেশের ৪২টি পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যগণের একাডেমিক প্রোফাইল কষ্ট করে একবার দেখে নিলে তিনি দেখতে পাবেন যে, তাঁর ওই বক্তব্য কতটা অষাঢ় বা বাস্তবতা বিবর্জিত। সমাজে যারা সেলিব্রেটি হিসেবে পরিগণিত তাঁদের আচার-আচরণ, উচ্চারণ, মন্তব্য আরো সতর্ক ও বস্তুনিষ্ঠ হওয়া একান্ত কাম্য।’

গত ২৮ জুলাই জনপ্রিয় লেখক ও অধ্যাপক জাফর ইকবাল শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের এক অনুষ্ঠানে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যদের সম্বন্ধে  ‘যাদের কোনো যোগ্যতা নেই, তারা এখন বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর ভিসি’ বলে মন্তব্য করেন। এ সংবাদ বিভিন্ন পত্রিকাসহ সংবাদ মাধ্যমে প্রকাশিত হয়েছে।

আপনার মন্তব্য